কথাসাহিত্যিক দিব্যেন্দু পালিত শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন

দুই বাংলার প্রখ্যাত লেখক দিব্যেন্দু পালিত মারা গেছেন। আজ যাদবপুরের কেপিসি মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন বর্ষীয়ান এই সাহিত্যিক। তাঁর বয়স হয়েছিল ৭৯ বছর। খবরটি নিশ্চিত করেছে কলকাতার আনন্দবাজার, এই সময় ও নিউজ ১৮সহ বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম।

গতকাল বুধবার অসুস্থ অবস্থায় তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। হাসপাতাল থেকে জানানো হয়, হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন এই কথাসাহিত্যিক। উচ্চ রক্তচাপ ও টাইপ টু ডায়াবেটিস ছিল তাঁর। এর আগে একবার তাঁর মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণও হয়।

১৯৩৯ সালের ৫ মার্চ বিহারের ভাগলপুরে জন্ম হয় দিব্যেন্দু পালিতের। যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে তুলনামূলক সাহিত্য বিভাগের ছাত্র ছিলেন। পঞ্চাশের দশকে বাংলা কথাসাহিত্যে যাঁরা নজর কেড়েছিলেন, তাঁদের মধ্যে অন্যতম দিব্যেন্দু পালিত।

১৯৫৫ সালে প্রথম গল্প ‘ছন্দপতন’ প্রকাশিত হয় আনন্দবাজার পত্রিকার রবিবাসরীয়তে। প্রথম উপন্যাস ‘সিন্ধু বারোয়াঁ’ প্রকাশিত হয় ১৯৫৯ সালে। ১৯৮৪ সালে পেয়েছেন আনন্দ পুরস্কার। ১৯৯০ সালে ‘ঢেউ’ উপন্যাসের জন্য পেয়েছেন বঙ্কিম পুরস্কার। ‘অনুভব’ উপন্যাসটির জন্যে সাহিত্য আকাদেমি পুরস্কার পান ১৯৯৮ সালে। তাঁর লেখা ‘মূকাভিনয়’ গল্পটি নিয়ে ২০০৫ সালে শ্যামানন্দ জালান একটি ছবি তৈরি করেছিলেন। তপন সিংহও তাঁর লেখা গল্প ‘অন্তর্ধান’ নিয়ে ছবি তৈরি করেন।

Leave a Reply

Top